সর্বশেষ সংবাদ
রাজ-শুভশ্রী এক বাঁধনে  » «   বাংলাদেশ নতুন যুগে প্রবেশ করেছে : প্রধানমন্ত্রী  » «   আগাম বন্যার আশঙ্কা  » «   ঈদে আসছে ‘আমার প্রেম আমার প্রিয়া’  » «   বজ্রপাতে একদিনে সারাদেশে ৩০ জনের মৃত্যু  » «   জাতীয় অধ্যাপক মুস্তাফা নূরউল ইসলামের ইন্তেকাল  » «   জাতিসংঘ মিশন : সিলেটের ২০০ স্বপ্নবাজ তরুণের নেতৃত্বে হাওরসন্তান সোহাগ  » «   বিয়ানীবাজারে বুদ্ধি প্রতিবন্ধি যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার  » «   বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হচ্ছেন সোনম কাপুর আর আনন্দ আহুজা  » «   এসএসসি ফল পুনঃনিরীক্ষন শুরু : একাদশে ভর্তি ১৩ মে থেকে  » «   ষাঁড়ের গুতোয় কৃষকের মৃত্যু  » «   পা-ই তার সাফল্যের চাবিকাটি  » «   গাছ ভেঙে পড়ায় সিলেটের সাথে রেল যোগাযোগ বন্ধ  » «   এসএসসিতে সিলেটে পাস ৭০.৪২% : জিপিএ-৫ ৩১৯১ জন  » «   নিয়োগ চলছে কামা পরিবহন (প্রা. লি.)-এ।  » «  

রাষ্ট্রপতির সাথে সিকৃবি প্রতিনিধি দলের সাক্ষাত



????????????????????????????????????

প্রান্তডেস্ক:: সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের (সিকৃবি) একটি প্রতিনিধি দল বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের সাথে সৌজন্য সাক্ষাৎ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের আগামী সমাবর্তনে অংশ নেওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়েছে। বৃহস্পতিবার (১২ অক্টোবর) বিকেলে সাড়ে তিনটায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. মো. গোলাম শাহি আলমের নেতৃত্বে ১০ সদস্যের প্রতিনিধি দলটি রাষ্ট্রপতির সাথে সাক্ষাত করে।
বিশ্ববিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ সিকৃবির বিদ্যমান সুষ্ঠু শিক্ষার পরিবেশ সম্পর্কে সন্তোষ প্রকাশ এবং যথাসময়ে শিক্ষার সব কোর্স সম্পন্ন করার পাশাপাশি গবেষণা, উন্নয়ন ও সরকারের লক্ষ বাস্তবায়নে আন্তরিকতার সাথে কাজ করতে প্রতিনিধি দলকে নির্দেশনা দেন।
এসময় মহামান্য রাষ্ট্রপতিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে অবহিত করা হয়, সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ে বর্তমানে ছয়টি অনুষদে ৪৭টি বিভাগে তিন হাজার শিক্ষার্থী অধ্যয়ন করছে। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন গবেষণা, শিক্ষা কার্যক্রম, উন্নয়ন কর্মকান্ড, ভবিষ্যত স্বপ্ন ও সম্ভাবনার কথা অবহিত করা হয়। মহামান্য রাষ্ট্রপতি প্রতিনিধি দলের বক্তব্য মনোযোগ দিয়ে শোনেন এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের আরো উন্নয়নে সহযোগিতার আশ্বাস দেন।
এসময় রাষ্ট্রপতি কার্যালয়ের সংশ্লিষ্ট সচিবগণ উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া সিলেট কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার বদরুল ইসলাম শোয়েব, ছয়টি অনুষদের ডিন প্রফেসর ড. এ.টি.এম. মাহবুব-ই-ইলাহী, প্রফেসর ড. মো. আবুল কাশেম, প্রফেসর ড. মোহা. তরিকুল আলম, প্রফেসর ড. মো. জসিম উদ্দিন আহাম্মদ, প্রফেসর ড. পীযূষ কান্তি সরকার, প্রফেসর ড. মোহাম্মদ মেহেদী হাসান খান, পরিচালক (ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা) প্রফেসর ড. মো. মতিয়ার রহমান হাওলাদার, প্রক্টর প্রফেসর ড. মৃত্যুঞ্জয় বিশ্বাস উপস্থিত ছিলেন।

Developed by: