সর্বশেষ সংবাদ
রাজ-শুভশ্রী এক বাঁধনে  » «   বাংলাদেশ নতুন যুগে প্রবেশ করেছে : প্রধানমন্ত্রী  » «   আগাম বন্যার আশঙ্কা  » «   ঈদে আসছে ‘আমার প্রেম আমার প্রিয়া’  » «   বজ্রপাতে একদিনে সারাদেশে ৩০ জনের মৃত্যু  » «   জাতীয় অধ্যাপক মুস্তাফা নূরউল ইসলামের ইন্তেকাল  » «   জাতিসংঘ মিশন : সিলেটের ২০০ স্বপ্নবাজ তরুণের নেতৃত্বে হাওরসন্তান সোহাগ  » «   বিয়ানীবাজারে বুদ্ধি প্রতিবন্ধি যুবতীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার  » «   বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হচ্ছেন সোনম কাপুর আর আনন্দ আহুজা  » «   এসএসসি ফল পুনঃনিরীক্ষন শুরু : একাদশে ভর্তি ১৩ মে থেকে  » «   ষাঁড়ের গুতোয় কৃষকের মৃত্যু  » «   পা-ই তার সাফল্যের চাবিকাটি  » «   গাছ ভেঙে পড়ায় সিলেটের সাথে রেল যোগাযোগ বন্ধ  » «   এসএসসিতে সিলেটে পাস ৭০.৪২% : জিপিএ-৫ ৩১৯১ জন  » «   নিয়োগ চলছে কামা পরিবহন (প্রা. লি.)-এ।  » «  

জাল টাকা প্রস্তুতকারী চক্রকে প্রতিরোধ করুন



5 পবিত্র রমজান মাস, ঈদউল ফিতর, ঈদউল আযহা পালন ও উদযাপনের সময়ে বাংলাদেশে ঘটে জাল নোটের ব্যাপক বিস্তার। এতে প্রতারিত হন সৎ ব্যবসায়ী সহ দেশের ব্যাপক জনগন।
পবিত্র রমজান মাসে জালনোটের বিস্তার ঠেকাতে জনগনকে সচেতন করা সহ বেশ কিছু পদক্ষেপ গ্রহণ করতে দেশের ব্যাংক গুলোকে নির্দেশ দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।
গত কয়েক বছর যাবত জাল নোট সনাক্তকারী মেশিন সরবরাহ সহ আসল নোটের নিরাপত্তা বৈশিষ্ঠ সম্পর্কে জনসাধারনকে সচেতন করতে নানা কার্য্যক্রম পরিচালনা করে আসছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এবার জাল নোট সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে ৫৬টি ব্যাংকে দায়িত্ব দিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এবারের নির্দেশনা হচ্ছে আসল নোটের নিরাপত্তা বৈশিষ্ঠ সম্বলিত ভিডিও চিত্র ব্যাংকের সব শাখায় ও রাজধানীর গুরুত্ব পূর্ণস্থানে প্রর্দশনের ব্যবস্থা গ্রহণ এবং ১১জুন থেকে ২২জুন প্রর্য্যন্ত এটি প্রচার করা। ঢাকাসহ দেশের ৫৬টি গুরুত্ব পূর্ণ স্থানে ভিডিও প্রচারের তারিখ ও স্থান নিদৃষ্ট করে দেয়া হয়েছে। সার্কুলারে বগুড়া জেলাসহ বিভাগীয় শহরের গুরুত্বপূর্ণ স্থানে সন্ধার পর এক ঘন্টা ভিডিও প্রচার সহ প্রতিটি ব্যংকের প্রত্যেক শাখায় টেলিভিশনে ভিডিও চিত্র দেখাতে বলা হয়েছে। এছাড়াও গ্রাহকের কাছ থেকে টাকা গ্রহণ, প্রদান, এটিএম বুথে ফিডিং করার সময় জালনোট সনাক্তকরন মেশিন দিয়ে নোট গুলি পরীক্ষা করতে বলা হয়েছে।
নোট জালকারী চক্রের ফাঁদ থেকে জনগনকে রক্ষা করার লক্ষ্যে বাংলাদেশ ব্যাংকের গৃহিত সিদ্ধান্ত ও নির্দেশনাকে জানাই অভিনন্দন, কামনা করি এ ক্ষেত্রে ব্যাংক গুলোর সাফল্য। সাথে সাথে সরকারের কাছে স্বরাষ্টমন্ত্রণালয়ের কাছে জানতে চাই নাগরিকদের নিশ্বঃকরে নিজেদের বিত্ত বৈভব গড়ে তুলতে যে চক্র দেশের অর্থ নীতি ধবংস করে সরকারকে জনদুশমন হিসাবে চিহ্নিত করতে চায় সেই চক্রকে চিহ্নিত করতে কেন স্বরাষ্টমন্ত্রণালয় সক্রিয় হচ্ছেনা। কেন আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীসহ গোয়েন্দা সংস্থাগুলো এক্ষেত্রে ব্যর্থ হচ্ছে।
আমরা মনে করি এ চক্রের মূলৎপটনে সরাষ্ট্র মন্ত্রনালয়সহ অর্থ, বানিজমন্ত্রণালয় ও জনগনের আারও সক্রিয় হওয়া জরুরী। প্রয়োজন এই চক্র নিধনে দ্রুত বিশেষ গোয়েন্দা সংস্থা গড়ে তোলা। আমরা আশা করি সরাষ্ট্রমন্ত্রণালয় সহ সরকার দেশে, জাতি, জনগনের স্বার্থে দ্রুত এ পদক্ষেপসহ প্রয়োজনীয় অনান্য কার্য্যক্রম পরিচালনা করতে কুন্ঠিত হবেন না।

Developed by: