সর্বশেষ সংবাদ
ভেজালের দায়ে হানডি রেস্টুরেন্টসহ ৪ প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা  » «   আত্মসমর্পণের আহ্বানের পর ‘জঙ্গি আস্তানায়’ বিস্ফোরণ  » «   শ্রীমঙ্গলে পানি কমে গেলেও রাস্তাঘাট ভেঙ্গে বিধ্বস্ত  » «   অসময়ের বৃষ্টিপাতই হাওরবাসীর দুর্ভোগের কারণ  » «   রাতে ইংল্যান্ডের উদ্দেশে রওয়ানা হচ্ছেন মাশরাফিরা  » «   আবহাওয়ার সঙ্গে পরিবর্তন হচ্ছে রোগের প্রকোপকাল  » «   সিলেটে চাঁদাবাজির মামলায় আটক সন্ত্রাসীরা পাঁচদিনের রিমান্ডে  » «   প্রধানমন্ত্রী রবিবার সুনামগঞ্জ আসছেন  » «   দুই ছিনতাইকারী আটক, মোটরসাইকেল জব্দ  » «   জাতীয় সাহিত্য পরিষদ ২০১৫ পদকে ভূষিত আফতাব চৌধুরী  » «   ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা মামলার বিচার আবার শুরু  » «   লাউয়াছড়ায় চলন্ত সিএনজির উপর গাছ পড়ে দুই মহিলা নিহত  » «   বিয়ানীবাজারে কসবা কেন্দ্রের ভোট বাতিল ঘোষণা  » «   বিয়ানীবাজার কসবা ভোট কেন্দ্রে হামলার চেষ্টা  » «   হাওরাঞ্চলে আগামী ফসল না ওঠা পর্যন্ত ত্রাণ বিতরণ চলবে : ত্রাণমন্ত্রী  » «  

জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ই-ভোটিং চান প্রধানমন্ত্রী



80856প্রান্ত ডেস্কঃ সুষ্ঠু, অবাধ ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের জন্য বর্তমানে বিরাজমান সব বিধি-বিধানের সঙ্গে সঙ্গতি রেখে জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ই-ভোটিং ব্যবস্থা চালু করা যেতে পারে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। বুধবার জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রীর জন্য নির্ধারিত প্রশ্নোত্তর পর্বে সংরক্ষিত মহিলা আসনের সদস্য নূর-ই-হাসনা লিলি চৌধুরীর প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, জনমানুষের ভোটাধিকার অধিকতর সুনিশ্চিত করার স্বার্থে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনেই ‘ই-ভোটিং’ এর প্রবর্তন করার পরিকল্পনাও বিবেচনায় নেয়া যেতে পারে।

এ সময় নির্বাচন কমিশন গঠনে সৃষ্ট জটিলতা নিরসনে আইন প্রণয়নের উদ্যোগ নিতে সংশ্লিষ্টদের এখন থেকেই কাজ শুরুর নির্দেশও দেন প্রধানমন্ত্রী।

নির্বাচন কমিশন গঠন সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সংবিধানের ১১৮ অনুচ্ছেদের বিধান অনুযায়ী রাষ্ট্রপতি প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য নির্বাচন কমিশনারদের নিয়োগ দেন। সংবিধানের আলোকে রাষ্ট্রপতি যেমন উপযুক্ত বিবেচনা করেন, সেই প্রক্রিয়ায় তিনি প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য নির্বাচন কমিশনার নিয়োগ সম্পন্ন করেন।

তিনি বলেন, প্রয়াত রাষ্ট্রপতি মো. জিল্লুর রহমান সাংবিধানিক পদের অধিকারীদের সমন্বয়ে গঠিত সার্চ কমিটির মাধ্যমে প্রধান নির্বাচন কমিশনারসহ কমিশনার নিয়োগ প্রথা চালু করেন। এবারও বাছাই কমিটির মতামত ও সুপারিশের ভিত্তিতে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ তার নিজ প্রজ্ঞায়, স্বীয় বিবেচনায় ইতোমধ্যে নির্বাচন কমিশন পুনর্গঠন করেছেন। রাষ্ট্রপতির সুদীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনের সুগভীর প্রজ্ঞা ও সুবিবেচনার প্রতি আমাদের পরিপূর্ণ আস্থা ও বিশ্বাস রয়েছে।

ইসি গঠনে আইন করার বিষয়টি তুলে ধরে শেখ হাসিনা বলেন, আমরা চাই পরবর্তীতে প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য নির্বাচন কমিশনার নিয়োগের লক্ষ্যে একটি উপযুক্ত আইন প্রণয়ন করা হোক। সংবিধানের নির্দেশনার আলোকে এখন থেকেই সেই উদ্যোগ গ্রহণ করা যেতে পারে।

সদ্য নিয়োগপ্রাপ্ত প্রধান নির্বাচন কমিশনার ও অন্য কমিশনারদের অভিনন্দন জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেন, আজ নতুন ইসি শপথ গ্রহণ করেছেন। তাদের সবাইকে আমি অভিনন্দন জানাই। পুনর্গঠিত নির্বাচন কমিশনে ইতিহাসে প্রথমবারের মতো নির্বাচন কমিশনার হিসেবে একজন নারীকে নিয়োগ দেয়ায় আমরা আনন্দিত ও গর্বিত।

Developed by: