সর্বশেষ সংবাদ
ফেঞ্চুগঞ্জ ইউনিয়ন ছাত্রদলের কমিটি : ঘোষণা উপজেলার, বাতিল জেলার  » «   ক্রীড়া সংগঠক আব্দুল কাদিরের মায়ের ইন্তেকাল  » «   রণবীর-দীপিকা বিয়ে নভেম্বরে?  » «   যাদুকর ম্যারাডোনার পায়ের অবস্থা করুণ  » «   একটু আগেবাগেই শীতের আগমণ  » «   চট্টগ্রামে আইয়ুব বাচ্চুর জানাযা বাদ আছর  » «   রাবণ পোড়ানো দর্শনকারী ভিড়ের উপর দিয়ে ছুটে গেলো ট্রেন : নিহত ৬০  » «   গোলাপঞ্জে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন উদ্বোধন করলেন শিক্ষামন্ত্রী  » «   বিসর্জনের দিন সিলেটে আসনে ‘দেবী’  » «   বিভিন্ন পূজা মণ্ডপ পরিদর্শনে মেয়র আরিফ  » «   সিলেটে স্বয়ংক্রিয় কৃষি-আবহাওয়া স্টেশন স্থাপিত  » «   শীতে ত্বক সজীব রাখতে শাক-সবজি খান  » «   সিলেট ওসমানী বিমানবন্দর সংস্কার হচ্ছে প্রায় ৪ কোটি টাকা ব্যয়ে  » «   কোম্পানীগঞ্জে টাস্কফোর্সের অভিযানে পেলোডার মেশিন জব্দ  » «   ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধনে সরকারকে নোটিশ  » «  

বঙ্গোপসাগরের কাছে ভারত-মিয়ানমার যৌথ মহড়া



Naval Exercise main
প্রান্ত ডেস্ক
বঙ্গোপসাগরের অদূরে সাগরে শক্তিবৃদ্ধির জন্য দুই প্রতিবেশী দেশ ভারত ও মিয়ানমার যৌথ সামরিক মহড়ার আয়োজন করেছে। গত ২৫ মার্চ থেকে দুই ভাগে এই মহড়া অনুষ্ঠিত হচ্ছে। প্রথম দফায় পোতাশ্রয়ে গত ২৫ মার্চ থেকে মহড়া শুরু হয়েছে, চলবে ৩০ মার্চ পর্যন্ত। এরপর ৩১ মার্চ থেকে দ্বিতীয় ধাপে সাগরে মহড়া চালাবে দুই দেশের নৌবাহিনী। যা শেষ হবে ৩ এপ্রিল।
সাগরে মহড়ার অংশ হিসেবে গত ২৫ মার্চ মিয়ানমারের দুই যুদ্ধজাহাজ ও ফ্রিগেটসহ দেশটির নৌবাহিনীর সদস্যরা ভারতের পূর্ব উপকূলীয় বিশাখাপত্তমে এসে পৌঁছায়। পারস্পরিক বোঝাপড়া ও সম্পর্ক জোরদার ছাড়াও সাগরে দুই দেশের শক্তি বৃদ্ধির অংশ হিসেবে এই যৌথ মহড়া অনুষ্ঠিত হচ্ছে বলে প্রতিবেদনে বলা হয়।
মিয়ানমারের ফ্রিগেট আর যুদ্ধজাহাজের বিপরীতে ভারতীয় নৌবাহিনীর থাকবে অ্যান্টি সাবমেরিন ফ্রিগেট, এন্টি-সাবমেরিন কর্ভেট, হেলিকপ্টার, জাহাজ থেকে উড্ডয়নযোগ্য যুদ্ধবিমান এবং সাবমেরিন। প্রত্যক্ষ যৌথ মহড়ার পাশাপাশি বন্দর নিরাপত্তার সাম্প্রতিক পরিস্থিত পর্যালোচনা ও পরবর্তী কৌশল নির্ধারণ করবে দু’দেশের নৌবাহিনীর অংশগ্রহণকারী সদস্যরা।
এদিকে, মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর সঙ্গেও যৌথ অভিযানের আয়োজন করে ভারতীয় সেনাবাহিনী। গত ২৬ মার্চ রংপুর সেনানিবাসে বাংলাদেশ-ভারত যৌথ সাইক্লিং অভিযানের সমাপনী অনুষ্ঠান হয়। গত ১২ মার্চ দু’দেশের সেনাবাহিনীর সদস্যরা যশোর সেনানিবাস থেকে এই অভিযান শুরু করে।
সাইক্লিস্ট সেনারা কলকাতা-বর্ধমান-পলাশী-রামকান্তপুর-মালদা-রায়গঞ্জ-কিসানগঞ্জ-শিলিগুড়ি-জলপাইগুড়ি-বিন্নাগুড়ি-কুচবিহার-বুড়িমারী ইত্যাদি স্থান ঘুরে গত ২৬শে মার্চ সকালে রংপুর সেনানিবাসে এসে অভিযান শেষ করে। এতে বাংলাদেশ ও ভারতের মোট ৩০ জন সাইক্লিস্ট সেনা সদস্য অংশ নেন।

Developed by: